দুর্নীতিবাজদের মানুষ ভোট দেবে না : প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক: জামায়াত-বিএনপি এ দেশের পরগাছা। স্বাধীনতাবিরোধী ও দুর্নীতিবাজদের বাংলাদেশের মানুষ কখনো ভোট দেবে না। বলেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে রবিবার বিকেলে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ আয়োজিত বিজয় দিবসের আলোচনাসভায় সভাপতির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, যুদ্ধাপরাধীদের সন্তানদের নিয়ে দল গঠন করছেন বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া। খালেদা জিয়া যুদ্ধাপরাধীদের মন্ত্রী বানিয়েছিলেন আর স্বাধীনতা বিরোধীদের প্রতিষ্ঠা করেছিলেন জিয়াউর রহমান। তিনি আরো বলেন, বাঙালি জাতির অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। বাঙালির অধিকারের ছয় দফা আদায়ে সারাবাংলা ঘুরেছেন বঙ্গবন্ধু। বাঙালি জাতির ভাগ্য পরিবর্তনের কাজ করছে আওয়ামী লীগ। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় থাকলে দেশের উন্নয়ন হয়।তিনি আরো বলেন, শুধু গাড়ি নয়, মানুষ পুড়িয়ে মেরেছে বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া। কোরান শরিফ পোড়ানো, গাছকাটা, রাস্তা কেটে ফেলা, কি-না করেছে? এভাবে তারা দেশকে ধ্বংসের দিকে এগিয়ে নিতে চেয়েছে। জনগণ যখন প্রতিরোধ করেছে তখন তারা থামতে বাধ্য হয়েছে।তিনি আরো বলেন, বিএনপি বাংলাদেশের ব্যাংক থেকে ৯৫০ কোটি টাকা লুটে নিয়েছে। তারা আবার স্বপ্ন দেখছে ক্ষমতা যাওয়ার। তারা আবার স্বপ্ন দেখে রাজনীতি করার।প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশবাসীর কাছে বুদ্ধিজীবী ও বিজয় দিবস উপলক্ষে এটাই আহ্বান; এ দেশের মানুষ যেন দারিদ্র্যমুক্ত হয়, আমাদের দেশের ছেলেমেয়েরা যেন লেখাপড়া শেখে। আজ ডিজিটাল বাংলাদেশ তৈরি করছি। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির শিক্ষা নিয়ে দেশের মানুষ এগিয়ে যাবে। সে উন্নতি যারা চান তারা কি কখনো তাদের সমর্থন করতে পারে? এরা তো লুটেরা। এরা একদিকে যেমন যুদ্ধাপরাধী ও সন্ত্রাসীদের লালন-পালন করেছে; তেমনি দেশের মানুষের শান্তি বিনষ্ট করেছে। দেশকে উন্নয়নের পথ থেকে সম্পূর্ণ ধ্বংসের পথে নিয়ে গেছে। আমরা দেশ গড়ি ওরা ধ্বংস করে।সভায় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদসহ দলের শীর্ষ স্থানীয় নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

মতামত দিন