চট্টগ্রামে জয়-পরাজয়ের হিসাব কষতে ব্যস্ত প্রধান দুইদল

নিউজ ডেস্ক: বাংলাদেশের বাণিজ্যিক রাজধানী চট্টগ্রাম। পাহাড়, সমুদ্র, উপত্যকা আর অরণ্যে ঘেরা এই জেলার মতো ভৌগোলিক বৈচিত্র্য দেশের আর কোন জেলারই নেই।

৫ হাজার ২৮৩ বর্গ কি. মি আয়তনের এ জেলায় ভোটার সংখ্যা অর্ধ কোটিরও বেশি। এরমধ্যে ২৮ লাখ ৪৬ হাজার ১১৬ জন পুরুষ ভোটার। আর নারী ভোটার ২৬ লাখ ৫৫ হাজার ১৮৬ জন।

২০০১ সালের নির্বাচন পর্যন্ত ১৫টি আসন থাকলেও ০৮ নির্বাচনে ব্যাপকভাবে রদবদল হয় এ জেলার সংসদীয় সীমানায়।  তখন থেকে অবশ্য একটি বেড়ে চট্টগ্রামে আসন সংখ্যা এখন ১৬টি।  ভোটের হাওয়ার এই পর্বে থাকছে চট্টগ্রাম ১ থেকে ৬ আসনের পরিচিতি।

৯১ সালের নির্বাচনে চট্টগ্রাম ১,২ ও ৫ আসনে ছিল বিএনপির কর্তৃত্ব। চট্টগ্রাম ৩ ও ৪ আসনে আওয়ামী লীগ আর ৬ আসনে নির্বাচিত হন এনডিপির প্রার্থী।

৯৬ সালে চট্টগ্রাম ১,৫ ও ৬ আসনে ধানের শীষের জয় আর বাকি ৩টি আসনে জয়ী নৌকা। ২০০১’র নির্বাচনে চট্টগ্রাম ৪ আর ৫ আসন আওয়ামী লীগের ঘরে গেলেও বাকি ৪টি আসনে বিএনপির দখলে।

আর ০৮ সাল এবং ১৪’র নির্বাচনে চট্টগ্রাম-২ আসন ছাড়া বাকি ৫টি আসনই নৌকার দখলে।

অতীতের মতই এই ৬টি আসনে জয়-পরাজয়ের হিসেব কষতে মরিয়া প্রধান দুই রাজনৈতিক জোট। আর তাই ভোটের আমেজে এখন থেকে সরব সম্ভাব্য প্রার্থীরা।

মতামত দিন