লোহাগাড়ায় মোস্তাফিজুর রহমান কলেজের সামনে ময়লা-আবর্জনার স্তূপ সরিয়ে ফেলার উদ্যোগ

মো. এরশাদ অালম, লোহাগাড়া (চট্টগ্রাম):

চট্টগ্রাম-কক্সবাজারে মহাসড়কের লোহাগাড়া আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের সামনে দীর্ঘদিনের ময়লা-আবর্জনার স্তূপটি সরিয়ে নিতে কাজ শুরু লোহাগাড়া শহর উন্নয়ন কমিটির সদস্যরা।

৭ সেপ্টেম্বর (সোমবার) বিকালে লোহাগাড়া শহর উন্নয়ন কমিটির উদ্যোগে শহর উন্নয়ন কমিটির সদস্য ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা উপ-কমিটির প্রধান মিজানুর রহমান মিজানের নেতৃত্বে ময়লা-আবর্জনার স্তূপটি সরিয়ে নিতে কাজ শুরু করেন পরিচ্ছন্নতাকর্মীরা।

পরে সেখানে ময়লা-আবর্জনা না ফেলার নির্দেষ নিয়ে একটি ব্যানার টাঙিয়ে দেওয়া হয়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন লোহাগাড়া শহর উন্নয়ন কমিটির সদস্য সচিব এইচএম গণি সম্রাট, অাহবায়ক কমিটির সদস্য ও উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক জহির উদ্দিন,এম.এ আজিজ এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী ও অাহবায়ক কমিটির সদস্য,শিল্পপতি এম এ অাজিজ,
যুবলীগ নেতা আবদুল্লাহ আল সায়েম, মুহাম্মদ সরওয়ার কামাল ও মুহাম্মদ জিয়াবুল হক সওদাগর,বঙ্গবন্ধু স্মৃতি পরিষদ লোহাগাড়া উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ সোহেল চৌধুরী।

বটতলী শহর উন্নয়ন কমিটির সদস্য সচিব এইচ এম গনি সম্রাট জানান,আমরা গত কয়েকদিন অাগে দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে মিশন হাতে নিয়েছি।
মাননীয় এমপি মহোদয়ের নির্দেশে বটতলী শহরকে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন শহর রুপান্তরিত করা হবে। আমাদের কমিটির সদস্য,পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন উপ-কমিটির প্রধান মিজানুর রহমান মিজান গতকালকে সারাদিন ও গভীর রাত পর্যন্ত বটতলী শহর কে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন শহর গড়তে অভিযান পরিচালনা করেছেন। সর্বমহল আমাদের নব গঠিত কমিটিতে সাধুবাদ জানিয়েছেন।

তিনি আরও জানান, সড়কের এই স্হানে ময়লা-আবর্জনা ফেলা যাবেনা। যদি কেউ ময়লা-আবর্জনা ফেলে আমরা তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্হা নিবো। বটতলী শহর উন্নয়নের নব গঠিত কমিটি আগামীতে সুন্দর ও যানজটমুক্ত শহর উপহার দিবে বলে তিনি দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।

মতামত দিন