বান্দরবানে ইটভাটা থেকে শিকল বাঁধা ৪ শ্রমিককে উদ্ধার, ৯৯৯ নম্বরে ফোন

মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, বান্দরবান থেকে
বান্দরবানে জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯ থেকে কল পেয়ে এক ইটভাটায় শিকল দিয়ে বেঁধে রাখা ৪ শ্রমিককে উদ্ধার করেছে পুলিশ। 
এ ঘটনায় জড়িত থাকার অপরাধে ৭ জনকে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল সোমবার রাতে এ ঘটনা ঘটে।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বান্দরবান সদর উপজেলার কক্ষ্যাং পাড়া এলাকার এফবিএম ইটভাটায় শ্রমিকদের শিকল দিয়ে বেঁধে অত্যাচার করা হচ্ছে। মারধর করা হয়েছে শ্রমিকদের। অত্যাচার সইতে না পেরে নির্যাতিত শ্রমিকরা জাতীয় জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯-এ কল করেন। পরে ৯৯৯ নম্বর থেকে ফোন কল পেয়ে পুলিশ অভিযান চালিয়ে মো. মিলনের মালিকানাধীন এফবিএম ইটের ভাটা থেকে শিকলে বাঁধা অবস্থায় ৪ জন ইটভাটা শ্রমিককে উদ্ধার করেছে। 
উদ্ধারকৃত শ্রমিকেরা হলেন মো.আবুল কালাম, মো. রিয়াজ, মো. খলিল ও মো. রুবেল। তাদের বাড়ি নোয়াখালী জেলায়।
এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ৭ জনকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলো সাধন চন্দ্র, জাহাঙ্গীর আলম, শাহাদাৎ হোসেন, জসিম উদ্দিন, জাফর উদ্দিন, নূরুল ইসলাম ও মেজবাহ হোসেন।
তবে ইটভাটার মালিক মো. মিলন বলেন, “ইটের ভাটার শ্রমিকেরা মাঝির নিয়ন্ত্রণে থাকে। মাঝিই তাদের দেখাশোনা করেন। শ্রমিকদের শিকল দিয়ে বেঁধে রাখার বিষয়টি আমার আগে জানা ছিল না। শ্রমিকেরা নিজেরা মারধর করে পালিয়ে যেতে চাওয়ায় তাদের আটকে রাখা হয়েছিল বলে জানিয়েছেন মাঝি।”
এ বিষয়ে বান্দরবান সদর থানায় ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শহিদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, “৯৯৯ নম্বর থেকে কল পেয়ে ইটভাটা থেকে শিকল বাঁধা ৪ শ্রমিককে উদ্ধার করেছি। জড়িত থাকার অপরাধে কয়েকজনকে আটক করেছি। এ ঘটনায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।”

মতামত দিন