লোহাগাড়ায় সাংবাদিক জাহেদকে মোবাইল ফোনে প্রাণনাশের হুমকি: থানায় জিডি

মো. এরশাদ আলম, লোহাগাড়া (চট্টগ্রাম):

সংবাদ প্রকাশের জেরে লোহাগাড়া প্রেসক্লাবের প্রচারও প্রকাশনা সম্পাদক
সাংবাদিক জাহেদুল ইসলামকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছেন কলাউজান ইউনিয়ন পরিষদের এক সদস্য।

জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে বান্দরবানের লামা উপজেলার সরই এলাকার আবু বক্কর ছিদ্দিক নামের এক যুবককে অপহরণ করে মোটরসাইকেল চোর সাজিয়ে থানায় হস্তান্তর সংক্রান্তে ইউপি সদস্য সালাউদ্দিন সিকদার ও আব্দুর রহিম অপহরণ মামলায় ফেঁসে যান। সেটি নিউজ করায় মোবাইল ফোনে প্রাণনাশের হুমকি দেন সালাউদ্দিন সিকদার। ইতিমধ্যে কল রেকর্ডের অডিওটা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

জাহেদুল ইসলাম উপজেলার আধুনগর ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা। তিনি নিউজ পোর্টাল সিভয়েস, জাতীয় দৈনিক মানবকন্ঠ, ইংরেজি দৈনিক এশিয়ান এইজ ও দৈনিক সাঙ্গুতে কাজ করছেন। এছাড়া তিনি লোহাগাড়া প্রেস ক্লাবের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছেন।

সাংবাদিক জাহেদুল ইসলাম বলেন, গতকাল লামার সরই আমতলী এলাকার এক যুবককে তুলে এনে মোটরসাইকেল চোর সাজিয়ে মারধর করে থানায় হস্তান্তর করে দুই ইউপি সদস্য। বিষয়টি সন্দেহ হলে পুলিশ তদন্ত করে আসল তথ্য বের করে আনে। আসল তথ্য বেরিয়ে আসার খবরে কৌশলে থানা থেকে সটকে পড়েন দুই ইউপি সদস্য। এ নিয়ে সংবাদ প্রকাশের জের ধরে কলাউজান ইউপি সদস্য মো. সালাউদ্দিন সিকদার আমাকে মোবাইল ফোন দিয়ে বলেন, নিউজটা সরাই ফেল, নইলে তোর অবস্থা খারাপ হবে। এ নিউজ তোরে কে করতে বলছে। পুলিশ পাহারায় চলাফেরা করতে বলেন।

সাংবাদিক জাহেদুল ইসলামকে সংবাদ প্রকাশের জের ধরে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়ায় নিন্দা জানিয়েছেন লোহাগাড়া প্রেসক্লাবের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ।

লোহাগাড়া থানার ওসি মো. জাকের হোসাইন মাহমুদ জানান, সাংবাদিক জাহেদুল ইসলামকে সংবাদ প্রকাশের জেরে প্রাণনাশের হুমকির বিষয়ে একটি সাধারণ ডায়েরী পাওয়া গেছে। বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মতামত দিন