স্ত্রীকে হত্যা করে থানায় স্বামী

সাতক্ষীরার কালিগঞ্জে স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যার পর থানায় এসে হাজির হয়েছেন স্বামী জালাল সানা। দায় স্বীকার করে সকালে আত্মসমর্পণ করেছেন তিনি। মঙ্গলবার গভীর রাতে কালিগঞ্জ উপজেলার কৃষ্ণনগর ইউনিয়নের রঘুনাথপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় পুলিশ তাকে আটক করেছে।

নিহত নাসিমা খাতুন (৩৫) দুই কন্যা সন্তানের জননী।

কালিগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুবীর দত্ত জানান, নাসিমা-জালাল দম্পত্তি দিনমজুরের কাজ করে সংসার চালাতেন। তাদের ৮ম ও দশম শ্রেণীতে পড়ুয়া দুটি মেয়ে রয়েছে। সম্প্রতি জালাল সানা মানসিকভাবে কিছুটা ভারসাম্য হারিয়ে ফেলেছেন। যাকে-তাকে মার-ধর করাসহ মানুষের সাথে তিনি অসংলগ্ন আচরণ করছেন।

মঙ্গলবার রাতের কোনো এক সময়ে তিনি তার স্ত্রীকে দাঁ দিয়ে গলা কেটে হত্যা করেন। সকালেই তিনি থানায় এসে আত্মসমর্পণও করেছেন।

পুলিশ নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল পাঠিয়েছে বলেও জানান তিনি।

মতামত দিন